সিলেট ইবনে সিনা হাসপাতালে ডাক্তারের ভুল চিকিৎসায় জকিগঞ্জী রোগীর অবস্থা সঙ্কটাপন্ন

66

 

সিলেট নগরীর সোবহানীঘাট ইবনে সিনা হাসপাতালে ভুল অপারেশন করে এক রোগীকে আইসিউতে ভর্তি করা হয়েছে বলে অভিযোগ ওঠেছে। মঙ্গলবার রাতে এমন অভিযোগ করেছেন ভুক্তভোগী রোগীর স্বজনরা।

জানা যায়, জকিগঞ্জ পৌরসভার ৩নং ওয়ার্ডের পশ্চিম আনন্দপুর গ্রামের বাসিন্দ ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক যুগ্ম আহবায়ক ফারুক আহমদ। তিনি প্রচন্ড বুকে ব্যাথা নিয়ে সোমবার (২১ সেপ্টেম্বর) সকালে নগরীর ইবনে সিনা হাসপাতালে ভর্তি হন। বুকে ব্যাথা নিয়ে ভর্তি হলে চিকিৎসকরা পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে বুকের বাম পাশে পাথর আছে জানিয়ে দ্রুত অপারেশন করার জন্য বলেন। পরে ফারুক আহমেদ অপারেশন করাতে রাজি হলে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ মঙ্গলবার রাত ৮.৩০ মিনিটের সময় তাকে অপারেশন থিয়েটারে নিয়ে যান। যেখানে ডা. জামাল রোগীকে অপারেশন করবেন বলে জানা যায়। অপারেশন করার সময় দেখা যায় পাথর যে স্থানে রয়েছে সেই স্থানে অপারেশন না করে অন্যস্থানে অপারেশন করা হয় এবং সেখান থেকে কালো গোল রঙের ক্ষতস্থানে পানি জমাট বাধা দেখা যায় সেই স্থান অপারেশন করে রোগীকে অপারেশন থিয়েটার থেকে বের করে আইসিউতে নিয়ে রোগীকে রেখে ডাক্তার চলে যান।

হাসপাতাল থেকে বের হয়ে যাওয়ার সময় রোগীর স্বজনদের কাছে ডা. জামাল বলেন, তিনি দুঃখিত, তিনি বুঝে উঠতে পারেন নি যে রোগীর শরীরের ওই স্থানে ক্ষত রয়েছে যেখানে পানি জমাট বাধা ছিল, তিনি সেখানটাতে অপারেশন করেছেন। ডা. জামাল রোগীর স্বজনদের আশ্বাস দেন যে, তিনি কাল সকালের ভেতরে রোগীকে সুস্থ করে তুলবেন এবং পরবর্তীকালে সকালে উন্নত চিকিৎসার জন্য রোগীকে ঢাকায় নিয়ে যাওয়ার কথা বলেন। দীর্ঘ দেড় ঘন্টা অপারেশন করার পর অপারেশন থিয়েটার থেকে বের করে রোগীকে আইসিউতে ভর্তি করেন। বর্তমানে রোগীর অবস্থা সঙ্কটাপন্ন।

এই রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত রাত ২.৩০ মিনিট পর্যন্ত রোগীর অবস্থা অবনতির দিকে যাচ্ছে বলে জানিয়েছেন রোগীর স্বজনরা।

এই বিষয়ে ডা. জামাল সবুজ সিলেটকে ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, এটা আসলে একটা দুর্ঘটনা হয়ে গেছে। রোগীর স্বজনদের কাছে ঘটনাটি তিনি বুজিয়ে বলেছেন এমনটাই জানালেন এবং বর্তমানে রোগী আইসিইউতে ভর্তি রয়েছেন। বেশি রক্তক্ষরণের ফলে রোগীর অবস্থা সঙ্কটাপন্ন।

সুুুুত্রঃ সবুজ সিলেট