সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বিনষ্টকারীদের আইনের আওতায় আনা হোক

12

বিশ্বের তৃতীয় বৃহত্তম মুসলিম দেশ বাংলাদেশ সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির অনন্য দৃষ্টান্ত। যুগ যুগ ধরে এ দেশে সকল ধর্মের মানুষ সহাবস্থান করছে। ধর্মীয় সম্প্রীতির এ দেশে সবার ধর্ম পালন সবসময়ই অবারিত। কিন্তু একটি কুচক্রি মহল বিভিন্নভাবে ষড়যন্ত্র করে আমাদের এ সম্প্রীতি নষ্ট করতে চায়। পূজা ম-পে কুরআন কারীমের অবমাননা সেই ষড়যন্ত্রেরই একটি অংশ, যা খুবই দুঃখজনক। কোনো মুসলমান এটি বরদাশত করতে পারে না। কুরআন কারীম অবমাননার মতো ধৃষ্টতাপূর্ণ আচরণের সাথে যারা জড়িত তাদের খোঁজে বের করে অনতিবিলম্বে আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি প্রদান করা হোক।

বাংলাদেশ আনজুমানে তালামীযে ইসলামিয়ার কেন্দ্রীয় সভাপতি মুহাম্মদ দুলাল আহমদ ও সাধারণ সম্পাদক মুজতবা হাসান চৌধুরী নুমান সম্প্রতি কুমিল্লার নানুয়ার দিঘীরপাড়ে পূজা ম-পে কুরআনুল কারীমের অবমাননার প্রতিবাদে এক যৌথ বিবৃতিতে এ আহবান জানান।

নেতৃবৃন্দ আরো বলেন, পবিত্র কুরআনের অবমাননায় প্রতিটি মুসলমানের অন্তরে রক্তক্ষরণ হয়। কোনো মুসলমানই এ ধরনের ঘটনায় নীরব থাকতে পারে না। কিন্তু এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে ঘোলা জলে মাছ ধরার সুযোগ দেওয়াও কাম্য নয়। শান্তিপ্রিয় মুসলমানদের উস্কানী দিয়ে তাদেরকে বিশ্বপরিম-লে নেতিবাচকভাবে উপস্থাপন করার অপপ্রয়াস বিরল নয়। তাই আমরা এ ঘৃণিত কাজের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি এবং অনতিবিলম্বে দোষীদেরকে খুঁজে বের করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির আওতায় আনার জন্য প্রশাসনের কাছে জোর দাবী জানাচ্ছি। অযথা কালক্ষেপনে আইন শৃঙ্খলা বিনষ্ট হলে এর দায় প্রশাসনকেই নিতে হবে।